মাদারীপুরে খাবারে বিষ মিশিয়ে বানর হত্যায়, নারী গ্রেফতার

প্রকাশিত: 4:54 PM, May 12, 2020

জাগ্রত বাংলাদেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক: মাদারীপুর সদর উপজেলার চরমুগরিয়া এলাকায় বানর হত্যার অভিযোগে এক নারীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এর আগে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দুজনকে আটক করার পর ওই নারী বানর হত্যার কথা স্বীকার করেন। পরে চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক সাইদুর রহমান গতকাল রোববার বিকেলে তাঁকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

পুলিশ ও বন বিভাগ সূত্রে জানা যায়, মাদারীপুর সদর উপজেলার চরমুগরিয়া এলাকায় গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় ১৬টি বানরকে বিষ খাইয়ে হত্যা করে দুষ্কৃতকারীরা। ওই বানরগুলোকে মধ্যখাগদী এলাকার একটি খালপাড়ে মাটিচাপা দেওয়া হয়। মৃত পাঁচটি বানরের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য ঢাকায় পাঠায় জেলা প্রাণিসম্পদ অফিস। পরে এ ঘটনায় বন বিভাগের পক্ষ থেকে মাদারীপুর সদর থানায় বানর হত্যার অভিযোগে একটি মামলা করা হয়। এ ছাড়া চার সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেন মাদারীপুর জেলা প্রশাসক। এ ঘটনায় গত শনিবার গভীর রাতে মধ্যখাগদী এলাকা থেকে শাহানা বেগম ও আকু হাওলাদার নামের দুজনকে আটক করা হয়। আটক দুজন সম্পর্কে আত্মীয়। পরে শাহানা বানর হত্যার দোষ স্বীকার করেন।

এ ব্যাপারে মাদারীপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বদরুল আলম মোল্লা বলেন, ‘বানর হত্যার ঘটনায় সদর থানায় মামলা হলে সন্দেহভাজন দুজনকে আটক করি। তাঁদের মধ্যে শাহানা বেগম নামের এক নারী বানর হত্যার দায় স্বীকার করেন। শাহানা বেগম জানিয়েছেন, খাবারের সঙ্গে বানরগুলোকে বিষ দিয়েছিলেন তিনি। এতে বিষক্রিয়া হয়ে মারা গেছে বানরগুলো। তবে কোন ধরনের বিষ দেওয়া হয়েছিল, তা জানা সম্ভব হয়নি। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে বোঝা যাবে। অন্যদিকে, আকু হাওলাদারের দোষ না পাওয়ায় তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।’