হাট-বাজারে বজায় থাকছে না সামাজিক দূরত্ব ? ছাতা ব্যবহার করার নিদান দিল ওড়িশা সরকার

প্রকাশিত: 4:28 PM, May 1, 2020

জাগ্রত বাংলাদেশ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: করোনা মোকাবিলার একমাত্র উপায় সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা! সেই কারণেই লকডাউন, বাড়ি থেকে না বেরনোর নির্দেশ দিয়েছে সরকার। কিন্তু কিছু ক্ষেত্রে বাড়ি থেকে না বেরিয়েও উপায় নেই, যেমন বাজার-হাট, ওষুধ কেনা…আর সেখানেই ঘটছে বিপত্তি! সরকার নির্দিষ্ট সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে বাজার করতে বলছেন, কিন্তু অনেকেই তা মানছেন না! সেই আগের মত গায়ের ওপর হামলে পড়ে, ঘেঁষাঘেঁষি করে দাঁড়িয়ে চলছে বিকিকিনি। অনেকেই পাড়ার মোড়ে জটলা করছেন ! আর এতে করোনাভাইরাস সংক্রমণ আরও ছড়িয়ে পড়ার ঝুঁকি ক্রমশই বাড়ছে। এবার সামাজিক দূরত্ব মেনে চলা নিশ্চিত করতে ছাতা ব্যবহারের নির্দেশ দিল ওড়িশা সরকার।

ওড়িশার গঞ্জাম জেলায় এই নির্দেশ দিয়েছে প্রশাসন। গঞ্জামের জেলাশাসক বিজয় অমৃত কুলাঙ্গি ট্যুইটারে একটি কার্টুন ছবি এঁকে শেয়ার করেন, যেখানে বোঝানো হচ্ছে কীভাবে একটি ছাতা দু’জন ব্যক্তির মধ্যে স্বাভাবিক ভাবেই ১.৫ মিটার দূরত্বের সৃষ্টি করে। পাশাপাশি ছাতা রোদের হাত থেকেই বাঁচায় ! অর্থাৎ এক ঢিলে দুই পাখি! তাঁর মতে, করোনাভাইরাসের প্রতিষেধক এখনও আবিষ্কার করা যায়নি। কাজেই এখন বাঁচার একমাত্র উপায় সব রকম সতর্কতা অবলম্বন করা। মাস্ক ব্যবহারের পাশাপাশি নিয়মিত হাত ধোয়ার অভ্যাস করতে হবে, রাস্তায় বেরলে সঙ্গে নিতে হবে ছাতা।

তবে ওড়িশাতেই এই প্রথম নয়, এর আগে কেরলের আলাপুঝা জেলায পঞ্চায়েতের তরফে এমনই  নির্দেশ দেওয়া হয়।