স্বামীকে বেঁ’ধে রেখে স্ত্রীকে গণধ’র্ষণ করল ৭ লম্পট চোর

প্রকাশিত: 7:23 PM, January 18, 2020

জাগ্রত বাংলাদেশ 

স্বামীকে বেঁ’ধে রেখে স্ত্রীকে গণধ’র্ষণ করল ৭ চো’স্বামীকে বেঁ’ধে রেখে- মানিকগঞ্জের সিংগাইরে সিঁধ কেটে ঘরে ঢুকে স্বামীর হাত-পা বেঁ’ধে রেখে স্ত্রীকে গণধ’র্ষণের ঘটনা ঘটেছে। বুধবার গভীর রাতে উপজেলার চারিগ্রাম ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় জ’ড়িত স’ন্দেহে ওই এলাকার চারজনকে গ্রেফ’তার করেছে পু’লিশ। তারা এলাকায় মা’দকসেবী হিসেবে পরিচিত। তারা হলেন- লেবু (৪০), মতিয়ার (৪০), জহিরুল জহুু (২৬) এবং মাজেদ (৩৮)।

নির্যা’তনের শি’কার ওই নারীকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রা’ইসিস সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় নির্যা’তনের শি’কার ওই নারীর স্বামী বাদী হয়ে সিংগাইর থা’নায় মা’মলা করেছেন।

মাম’লায় তিনি উল্লেখ করেন, বুধবার রাত সোয়া ১২টার দিকে ৭ জন লোক সিঁদ কেটে ঘরে ঢুকে গৃহবধূর স্বামীর হাত-পা বেঁ’ধে ফেলে। পরে তারা গৃহবধূকে পাশের কক্ষে নিয়ে পা’লাক্রমে ধ’র্ষণ করে। ঘণ্টা দেড়েক পর তারা ওই গৃহবধূর স্বামীর ব্যবহৃত মুঠোফোন নিয়ে পা’লিয়ে যায়।

বৃহস্পতিবার ভোরে গুরু’তর অসুস্থ অবস্থায় ধ’র্ষিত ওই নারীকে স্বজনরা উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে যায়। পরে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাই’সিস সেন্টারে স্থানান্তর করা হয়।

সিংগাইর থা’না পু’লিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর সাত্তার মিয়া জানান, ধ’র্ষণের ঘটনায় নির্যা’তিতার স্বামী বাদী হয়ে থা’নায় মা’মলা করেছেন। ইতোমধ্যে এজাহারনামীয় চার আসা’মিকে গ্রেফ’তার করা হয়েছে। বাকি আসা’মিদের গ্রেফ’তারের চেষ্টা চলছে।