ইজতেমা দ্বিতীয় পর্বের ৫মুসল্লির মৃত্যু, আখেরি মোনাজাত কাল ও যান চলাচলে নির্দেশনা

প্রকাশিত: 4:34 PM, January 18, 2020

জাগ্রত বাংলাদেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক : গাজীপুরের টঙ্গীর তুরাগ তীরে বিশ্ব ইজতেমা ময়দানে দ্বিতীয় পর্বে যোগ দিতে আসা পাঁচজন মুসল্লি মারা গেছেন। এর মধ্যে গতকাল শুক্রবার রাতেই চারজন মারা যান।

তারা হলেন রংপুরের পীরগঞ্জ উপজেলার উসমানপুর এলাকার জয়নাল আবেদীনের ছেলে হুমায়ুন কবীর (৬৫), ঝিনাইদহ সদর উপজেলার কালাহাট গোপালপুর গ্রামের আ ফ ম জহুরুল আলম (৬২), ঢাকার উত্তরা পশ্চিম থানার নলভোগ এলাকার ফজলু মিয়ার ছেলে ইলিয়াস মিয়া (৮৫) ও গাইবান্ধার সাঘাটা থানার কামালের পাড়া গ্রামের আব্দুস সোবহান (৬৫)।তাদের মধ্যে সোবহান হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে আর অন্য তিনজন বার্ধক্যজনিত কারণে মারা গেছেন।গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-কমিশনার মো. মনজুর রহমান বলেন, শুক্রবার রাতে বার্ধক্যজনিত কারণে ও হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে চারজন মারা গেছেন বলে জানতে পেরেছি।

এর আগে গেল বৃহস্পতিবার রাতে সুনামগঞ্জের দোয়ারা বাজার উপজেলার চানপুর এলাকার কাজী আলাউদ্দিন (৬৬) মারা যান। এ নিয়ে দ্বিতীয় পর্বের ইজতেমায় যোগ দিতে আসা পাঁচজন মারা গেলেন।

টঙ্গীতে বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বের আখেরি মোনাজাত কাল রোববার। লাখো মুসল্লির সমাগম নির্বিঘ্ন করতে যান চলাচল নিয়ন্ত্রণে পদক্ষেপ নিয়েছে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশ।

ইতোমধ্যে কয়েক লাখ মুসল্লি ইজতেমা ময়দানে অবস্থান করছেন। আখেরি মোনাজাতে শরিক হতে আরো বিপুল সংখক মুসল্লি ইজতেমা ময়দানে জড়ো হবেন বলে আশা করা হচ্ছে।

মুসল্লিদের ইজতেমা ময়দানে আসা এবং আখেরি মোনাজাত শেষে মুসল্লিদের বাড়ি ফেরা নির্বিঘ্ন করতে গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশ টঙ্গীমুখী সড়ক-মহাসড়কে ট্রাফিক ব্যবস্থা নিয়ন্ত্রণ নিয়ন্ত্রণ করবে।

গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের কমিশনার মো. আনোয়ার হোসেন জানিয়েছেন, ইজতেমায় মুসল্লিদের আসা-যাওয়া নিবিঘ্ন করতে শনিবার দিবাগত ভোর রাত ৪টা থেকে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের গাজীপুর চৌরাস্তায় এবং ঢাকার মহাখালী থেকে বন্ধ করে দেয়া হবে। উত্তরবঙ্গ থেকে আসা গাড়ি গাজীপুর সিটি করপোরেশনের কোনাবাড়ি থেকে বন্ধ করে দেয়া হবে। এ ছাড়া টঙ্গীমুখী সকল শাখা সড়কগুলো বন্ধ থাকবে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত এ ট্রাফিক ব্যবস্থা অব্যাহত থাকবে।

পুলিশ কমিশনার বলেন, ‘ইজতেমায় যোগ দেয়া বৃদ্ধ মুসল্লিদের যাতায়াতের জন্য শাটল বাসের ব্যবস্থা থাকবে। ইজতেমাস্থল থেকে চৌরাস্তামুখী ৩০টি এবং মহাখালীমুখী ৩০টি বাস চলাচল করবে।’

তিনি বলেন, ‘বিশ্ব ইজতেমায় আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক ও ভাল রয়েছে। আশা করছি বাকি সময়টুকুও সুন্দর ও শান্তিপূর্ণভাবে সম্পন্ন হবে।’

গত শুক্রবার বাদ ফজর থেকে শুরু হয় বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্ব। এ পর্বে মাওলানা সা’দ অনুসারি মুসল্লিরা অংশ নিচ্ছেন।

উল্লেখ্য, এবারের দুই পর্বের বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব ১২ জানুয়ারি আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হয়।