মেয়েকে ধর্ষণের দায়ে জেল থেকে বেরিয়ে আবারও ধর্ষণ, পিটিয়ে রক্তাক্ত

প্রকাশিত: 10:36 PM, December 26, 2019

জাগ্রত বাংলাদেশ

নারায়ণগঞ্জে নিজের মেয়েকে ধর্ষণের মামলায় জেল থেকে বেরিয়ে এবার প্রতিবেশীর দুই বছরের শিশুকে ধর্ষণ করেছে জাহাঙ্গীর সরদার (৪৫) নামে এক ব্যক্তি।

এ ঘটনায় জাহাঙ্গীর সরদারকে গণপিটুনি দিয়ে রক্তাক্ত করে পুলিশে দিয়েছে স্থানীয় জনতা। বৃহস্পতিবার (২৬ ডিসেম্বর) দুপুরে নারায়ণগঞ্জ শহরের ১৮নং ওয়ার্ডের আলামিন নগর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

এদিকে ধর্ষণের শিকার শিশুটিকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। শিশুটি আলামিন নগরের একটি বাড়ির ভাড়াটিয়া দিনমজুরের মেয়ে।

ধর্ষক জাহাঙ্গীর সরদার শহরের সৈয়দপুর কড়ইতলা এলাকার টুকু সরদারের ছেলে। এর আগে নিজের মেয়েকে ধর্ষণের ঘটনায় জুতাপেটার পর তাকে পুলিশে দেয়া হয়েছিল। ওই মামলায় দেড় মাস জেল খেটেছিল জাহাঙ্গীর। জেল থেকে বেরিয়ে আবারও দুই বছরের শিশুকে ধর্ষণ করল জাহাঙ্গীর।

নির্যাতিত শিশুটির নানি বলেন, শিশুটিকে আমার কাছে রেখে তার মা-বাবা কাজে যায়। প্রতিদিনের মতো শিশুটি আমার কাছেই ছিল এবং বাসায় খেলছিল। এরই মধ্যে চকলেট খাওয়ানোর প্রলোভনে শিশুটিকে নিজের ঘরে নিয়ে যায় জাহাঙ্গীর।

দুপুরে হঠাৎ করে জাহাঙ্গীরের ঘর থেকে শিশুটির কান্নার শব্দ শুনতে পাই। দৌড়ে গিয়ে জাহাঙ্গীরের ঘরের দরজা খুলে দেখি শিশুটি রক্তাক্ত অবস্থায় কান্না করছে। তখন চিৎকার দিলে আশপাশের লোকজন এসে জাহাঙ্গীরকে আটক করে।

স্থানীয়রা জানায়, শিশুটিকে রক্তাক্ত দেখে এলাকাবাসী ক্ষুব্ধ হয়ে জাহাঙ্গীরকে গণপিটুনি দেয়। এতে রক্তাক্ত হয় তার শরীর। একপর্যায়ে স্থানীয় কাউন্সিলর কবির হোসাইন ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি শান্ত করেন। পরে থানায় খবর দিয়ে তাকে পুলিশে সোপর্দ করা হয়।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি-অপারেশন) মোহাম্মদ আব্দুল হাই বলেন, শিশুটিকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে হাসপাতাল পাঠানো হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধর্ষণের আলামত পাওয়া গেছে। জাহাঙ্গীর সরদারের বিরুদ্ধে ধর্ষণ মামলা হবে।

ওসি আরও বলেন, এর আগে নিজের মেয়েকে ধর্ষণ মামলায় দেড় মাস জেল খেটেছিল জাহাঙ্গীর। জেল থেকে বেরিয়ে আবারও দুই বছরের শিশুকে ধর্ষণ করল সে। সংগৃহীত জুমবাংলানিউজ