রফিকুল ইসলাম মাদানীকে পুলিশে দিল র্যাব

প্রকাশিত: 3:52 PM, April 8, 2021

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাষ্ট্রবিরোধী উস্কানিমূলক ও ঔদ্ধত্যপূর্ণ বক্তব্য দেওয়ার এবং বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির অভিযোগে রফিকুল ইসলাম মাদানীর বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করেছে র্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র্যাব)।

গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের (জিএমপি) গাছা থানায় মামলাটি দায়েরের পর তাকে গাছা থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

বৃহস্পতিবার (৮ এপ্রিল) দুপুরে র্যাবের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের সিনিয়র সহকারী পরিচালক (এএসপি) ইমরান খান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, রফিকুল ইসলাম মাদানীর বিরুদ্ধে জিএমপির গাছা থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হয়েছে। পরে ওই মামলায় তাকে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

পুলিশ জানায়, রফিকুল ইসলাম আইন না মেনে রাষ্ট্রীয় গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের বিষয়ে কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করেছেন- এমন অভিযোগে তার বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা করা হয়।

সূত্র জানায়, বুধবার (০৭ এপ্রিল) দিনগত রাতে গাছা থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলাটি (নং-০৫) দায়ের করা হয়। মামলার একমাত্র আসামি রফিকুল ইসলামের (২৬) বিরুদ্ধে আইনের ২৫, ২৮, ৩১ ধারায় অভিযোগ আনা হয়েছে। পরে বৃহস্পতিবার (০৮ এপ্রিল) রফিকুল ইসলামকে পুলিশের কাছে হস্তান্ত করা হয়।

বুধবার (০৭ এপ্রিল) রফিকুল ইসলামকে নেত্রকোনা থেকে আটক করে র্যাব। তার বিরুদ্ধে রাষ্ট্রবিরোধী উস্কানিমূলক ও ঔদ্ধত্যপূর্ণ বক্তব্য দেওয়ার এবং বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির অভিযোগ রয়েছে।

গত ২৬ মার্চ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বাংলাদেশ সফরের বিরুদ্ধে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির অভিযোগে রফিকুলকে মতিঝিল থেকে আটক করে পুলিশ। পরে পরিবারের জিম্মায় তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়।

এরপর হেফাজতের নানা সহিংস কর্মকাণ্ড এবং হেফাজত নেতা মামুনুল হককে দ্বিতীয় স্ত্রীসহ সোনারগাঁয়ের রয়েল রিসোর্টে পাওয়ার ঘটনায় অনলাইনে আপত্তিকর বক্তব্য দেন রফিকুল ইসলাম। ফেসবুক লাইভে এসে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজসহ রাষ্ট্র ও সরকারবিরোধী নানা বক্তব্য দেন তিনি।